সিলেটে বিদ্যুৎ কন্দ্রে, রেল-স্টেশন, বিমান বন্দর-সাময়িক বন্ধ

বাংলা রিপোর্ট : বন্যার পানি উঠে যাওয়ায় সিলেটে বিদ্যুৎ কন্দ্রে, রেল-স্টেশন, বিমান বন্দর-সাময়িক বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন দুই জেলার মানুষ।

আজ ১৮ জুন শনিবার দুপুর সোয়া ১২টা থেকে বিভিন্ন উপকেন্দ্রের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। বিদ্যুৎ বিভাগের সিলেটের প্রধান প্রকৌশলী আবদুল কাদের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের সিলেট বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী মো. আবদুল কাদির বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, বিদ্যুৎকেন্দ্রে বন্যার পানি প্রবেশ করায় সরবরাহ সাময়িকভাবে বন্ধ রাখা হয়েছে। সেনাবাহিনী কাজ করছে। পানি নামানো গেলেই সরবরাহ আবার চালু করা হবে।

সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, বিদ্যুৎ উপকেন্দ্র রক্ষায় আমরা সর্বোচ্চ চেষ্টা চালাচ্ছি। সেনাবাহিনীও এখানে কাজ করছে। সেনাবাহিনী বিদ্যুৎকেন্দ্রের চারপাশে বালুর বস্তা দিয়ে বাঁধ নির্মাণের চেষ্টা করছে। ইতোমধ্যে কেন্দ্রে ঢুকে পড়া পানি সিটি করপোরেশনের সাকার মেশিন দিয়ে শুকানোর কাজ করা হচ্ছে।সিলেটের কয়েকটি বিদ্যুৎ উপকেন্দ্র ও সঞ্চালন লাইন পানিতে তলিয়ে বিদ্যুৎ বিভ্রাট দেখা যায় অনেক এলাকায়। দুর্ভোগে মাত্রা যোগ করেছে মোবাইল ফোনের নেটওয়ার্কহীনতা। সিলেট জেলা শহরে বৃহস্পতিবার রাত ৩টা থেকে নিরবচ্ছিন্ন মোবাইল নেটওয়ার্ক পাওয়া যাচ্ছে না।১৮ জুন ২০২২.