থানায় হামলা আওয়ামী লীগের ৭ পুলিশ আহত

ঢাকা  রোববার, ০৯ জুন ২০২৪, ২৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

বাংলা রিপোর্ট : আসামী ছিনিয়ে নিতে আওয়ামী লীগের শত শত নেতাকর্মী ঝিনাইদহের শৈলকুপা থানায় হামলা চালিয়েছে। এ ঘটনায় ওসি তদন্তসহ আহত হয়েছে ৭পুলিশ সদস্য। আর পুলিশের গুলিতে আহত হয়েছে ২৫ জন। 

আজ ৯ জুন রোববার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের শৈলকুপা উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আর গুরুতর আহতদের পাঠানো হয়েছে ঝিনাইদহ ও কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে। 

ঝিনাইদহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইমরান জাকারিয়া বলেন, ধাওড়া গ্রামের লোকজন থানা ঘেরাও করে আসামি মোস্তাক শিকদারকে ছিনতাই করে নেওয়ার চেষ্টা করে। এসময় তারা ভাঙচুর চালায় ও পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট পাটকেল ছোড়ে।

হামায় ওসি তদন্ত বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হওয়ার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, হামলাকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ রাবার বুলেট ও টিয়ারসেল নিক্ষেপ করলে বেশ কয়েকজন আহত হয়। 

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বলেন, এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করবে। আর পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, মারামারির ঘটনায় শৈলকুপার ধলহরাচন্দ্র ইউনিয়নের ধাওড়া গ্রামের আওয়ামী লীগ নেতা মোস্তাক শিকদারকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এরপর তাকে ছাড়িয়ে নিতে শত শত মানুষ থানায় এসে ভিড় জমায়।

Soilkupa 1

এ সময় নিরীহ মানুষকে ধরে হয়রানি ও টাকার বিনিময়ে অপরাধীদের ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ এনে শৈলকুপা থানার ওসি শফিকুল ইসলাম চৌধুরীকে প্রত্যাহারের দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল বের করে বিক্ষুব্ধরা। 

ওসি প্রত্যাহারের স্লোগান দিতে দিতে মিছিল নিয়ে থানা ঘেরাও করে ইট পাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে। এসময় তাদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ ৩০ রাউন্ড টিয়ারসেল ও রাবার বুলেট ছোড়ে। 

পুলিশের গুলিতে আহতদের মধ্যে রয়েছে- ধাওড়া গ্রামের ফিরোজ শিকদার, আলী আকবর, আজগর মন্ডল, তুহিন জোয়ারদার, নাফিজ, সালামত, সুইম, জান্নাত, আসাদুজ্জামান, সাইফুদ্দিন, সাত্তার শিকদার, ইমন শিকদার, আব্দুল ওহাব, ফারুক, জালালসহ অন্তত ২৫ জন আহত হয়। 

শৈলকুপা থানার ওসি শফিকুল ইসলাম চৌধুরি বলেন, আওয়ামী লীগ কর্মী এজাহারভুক্ত আসামি ধলহরাচন্দ্র ইউনিয়নের ধাওড়া গ্রামের মোস্তাক সিকদারকে রোববার দুপুরে আটক করে পুলিশ। এতে ক্ষিপ্ত আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে শৈলকুপা থানা ঘেরাও করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে।

এতে কয়েকজন পুলিশ সদস্য গুরুতর আহত হন এবং হামলাকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ টিয়ারসেল ও রাবার বুলেট ছোড়ে বলে জানান তিনি। ঢাকা  রোববার, ০৯ জুন ২০২৪, ২৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১.